প্রবাসফেরত নারীর ঘরে আওয়ামি লীগ নেতা, ধরে বিয়ে দিল এলাকাবাসী | The Awami League leader got married in the house of a woman returning from exile


সিরাজগঞ্জের তাড়াশে প্রবাসফেরত এক নারীর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমের সূত্র ধরে রাত কাটাতে গিয়ে মহরম আলী (৩২) নামের স্থানীয় এক আওয়ামী লীগ নেতাকে আটক করেছে জনতা। এসময় স্থানীয় জনতা আওয়ামী লীগ নেতার সঙ্গে ওই নারীর বিয়ে দিয়ে দেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার ভোররাত ৩টার দিকে উপজেলার নওগাঁ ইউনিয়নের ভায়াট গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নারীসহ আওয়ামী লীগ নেতা নওগাঁ ইউনিয়নের ভায়াট গ্রামের মৃত রুস্তম আলীর ছেলে মহরম আলী ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

ভায়াট গ্রামের রাঙ্গা, নজরুল ইসলাম ও আলামিন হোসেনসহ প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মহরম আলীর প্রবাসফেরত ওই নারীর সঙ্গে রাত্রিযাপন করতে গেলে বাড়ির লোকজন টের পেয়ে তাকে আটক করে উত্তম-মধ্যম দেন। এ সময় গ্রামের লোকজন গিয়ে ওই নারীর ঘরে তাকে আটক করে রাখেন। পরে ভোর রাত ৩টার দিকে তাদের উভয়পক্ষের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে ৪ লক্ষ টাকা দেন মোহরানায় তাদের বিয়ে দেওয়া হয়। 

উপজেলার নওগাঁ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাই সরকার জানান, স্থানীয়দের মাধ্যমে জানতে পারি মহারম আলী প্রবাসফেরত ওই নারীর কাছে প্রায়ই যাতায়াত করতেন। রাতে ওই নারীর ঘরে প্রবেশ করলে পরে স্থানীয়রা তাদের দুজনকে আটক করে বিয়ে পড়িয়ে দিয়েছেন। এ নিয়ে সভাপতির সঙ্গে আলোচনা করে তার বিরুদ্ধে দলীয়ভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

স্থানীয়রা আরো জানান, এর আগেও মহরম আলীর একাধিক নারীর সঙ্গে কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে পড়েন। এছাড়া তার আপত্তিকর ছবি ভাইরাল হয়।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত মহরম আলী বলেন, ঘটনার দিন অসহায় ওই নারীর বাড়িতে এসে তাকে বিভিন্ন পরামর্শ দিচ্ছিলাম। কিন্তু পরিকল্পিতভাবে আমাকে আটক করা হয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

যোগাযোগ ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget