মাননীয় পরিকল্পনা মন্ত্রী বিশ্বনাথে উন্নয়নের জোয়ার তুলেছেন-এস এস নুনু মিয়া

মাননীয় পরিকল্পনা মন্ত্রী বিশ্বনাথে উন্নয়নের জোয়ার তুলেছেন-এস এস নুনু মিয়া
Hon'ble Planning Minister Bishwanath raises the tide of development - SS Nunu Mia


আপনারা জননেত্রী শেখ হাসিনার জন্য দোয়া করবেন। শেখ হাসিনাকে আপনারা ক্ষমতায় বহাল রাখতে হবে। শেখ হাসিনা বেঁচে থাকলে এদেশ এগিয়ে যাবে, শেখ হাসিনা সরকার বার বার দরকার।  আমি কাউকে কোন সময় ওয়াদা দেই নাই,  আমি বলি চেষ্টা করে যাবো।  তবে আমি আজকে একটা ওয়াদা দিলাম এই মাঠের উন্নয়নের জন্য ৫০ হাজার টাকা দিব ইনশা'আল্লাহ। 


আমার আরো দুই বৎসর সময় বাকী আছে পর্যাক্রমে আপনাদের জন্য কাজ করে যাবো এই স্কুলের জন্য একটা বিল্ডিং দরকার আপনারা যদি আগামী ৩০ মার্চের মধ্যে একটি রেজুলেশন করে দিতে পারেন তাহলে পরিকল্পনা মন্ত্রী ৩০ মার্চ বিশ্বনাথে আসবেন আমি সেখানে আপনাদের এই বিল্ডিংকের দাবী উত্তাপন করবো।


মাননীয় পরিকল্পা মন্ত্রী বিশ্বনাথে উন্নয়নের জোয়ার তুলছেন। বিশ্বনাথের জন্য আমি ৫০ কোটি টাকা এরপর আরো ১১ কোটি টাকা বরাদ্দ এনেছি। বিশ্বনাথের মানুষের জন্য আমি দিন রাত প্ররিশ্রম করে যাচ্ছি। কথা গুলো বলেছেন, বিশ্বনাথ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের অন্যতম সদস্য এস এম নুনু মিয়া।

আরো পড়ুন: সন্তানের সামনে গৃহবধূ গণধর্ষণের ঘটনায় আদালতে মামলা

মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে বিশ্বনাথের টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্তৃক আয়োজিত আলোচনা সভা ও বার্ষিক পুরুস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ( ২৬শে মার্চ) শনিবার বিকেলে প্রধান অতিথির বক্তব্যকালে উপরোক্ত কথা গুলো তিনি ব্যক্ত করেন।


আলোচনা ও পুরুস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানটি টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সিরাজুল আমীন ফুল মিয়ার সভাপতিত্বে ও যুবনেতা শাহাদাৎ হোসেনের সঞ্চালনায়, প্রধান অতিথি এস এম নুনু মিয়া আরোও বলেন, ৭১ সালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ভাষণে এদেশের দামাল ছেলেরা মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেছিল। 


বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন, যার যা কিছু আছে তা নিয়ে ঝাপিয়ে পড়। তখন বঙ্গবন্ধু ডাকে ঘর বাড়ী ছেলে সন্তান বাঁচ্চা রেখে সৈনিকরা ময়দানে ঝাপিয়ে পড়ে। মুক্তিযোদ্ধে ৩০ লক্ষ মানুষ শহিদ  আর দুই লক্ষ মা বোনের ইজ্জত লুন্টন হয়েছিল তার বিনিময়ে আজকে পেয়েছি আমরা বাংলাদেশ।


তিনি সর্বস্হরের মানুষের কাছে অনুরোধ করেন সর্থক থাকার জন্য আমাদেরকে ডায়ভাট করার জন্য চেষ্টা  এবং আমাদের সরকারের বিরুদ্ধে সড়যন্ত্র চলছে তাই অলংকারি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ ভাবে যে কোন সময় ওই সড়যন্ত্র মোকাবেলায়  প্রস্তুত থাকার জন্য তিনি আহবান জানান।

আরো পড়ুন: তেলের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিলে গ্যাস বন্ধের হুমকি রাশিয়ার

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন, বিশ্বনাথ উপজেলা শিক্ষা অফিসার আব্দুর রাজ্জাক, বিশ্বনাথ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি সেলিম আহমদ সেলিম, ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় কার্যকরী পরিষদের সদস্য সিতার মিয়া, সুনামগঞ্জের সদর উপজেলা পরিষদের প্রকৌশলী আনোয়ার হোসেন, টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক কমিটির ভাইসপ্রেসিডেন্ট আব্দুল কাইয়ুম, বিশ্বনাথ সাংবাদিক ক্লাবের আহবায়ক মোঃ শাহিন উদ্দিন, আল মুছিম স্কুল এন্ড কলেজের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম, অলংকারি ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক এম এস এস আবসান খাঁন, বিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন, বিদ্যালয়ের ছাত্র নাইম আহমদ, ৭ই মার্চের উপর ভাষণ রাখেন বিদ্যালয়ের ছাত্র সামিউল হাসান নাদিম।


আলোচনা সভায় ও পুরুস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্হিত ছিলেন, উপজেলা সহকারি শিক্ষা অফিসার জমসেদুর রহমান, বিশ্বনাথ উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল মতিন, টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সাবেক সহকারি শিক্ষক জ্যোতি রাণী ভোমিক, বিশ্বনাথ পৌর আওয়ামী লীগের আহবায়ক কমিটির সদস্য ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের পি এস দবির আহমদ, অলংকারি ৭ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও টেংরা শাহী ঈদগা পরিচালনা কমিটির চেয়ারম্যান মুরব্বী আজম আলী, বাংলাদেশ ব্যাংক সিলেট ব্রাঞ্চের উপসহকারি ব্যবস্হাপক (ক্যাশ) আল জাহান, ৭নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজাদ মিয়া, ছনখাড়ী গাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক এড. রফিকুল হক জুনেদ, টুকেরকান্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক রিপন দাশ, টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক পপি রাণী পাল,টেংরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক পিয়ারা বেগম, বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মোমিনা বেগম, বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক জয়ন্তী রাণী দাস, সহকারি শিক্ষক গায়ত্রী মজুমদার সহকারি শিক্ষক মাসুদা আক্তার সহকারি শিক্ষক মমতাজ সুলতান টেংরা একাডেমির পরিচালক আলী হোসাইন মোল্লা, বিশ্বনাথ সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ নেতা কামরুল ইসলাম, জাতিয়পাটির ওয়ার্ড কমিটির সদস্য জামাল খাঁন, বিদ্যালয়ের ভূমিদাতা পরিবারের সদস্য কাঞ্চন ঘোষ, বিদ্যালয়ের কর্মকর্তা আব্দুস সামাদ ও শিল্পী সিজান প্রমুখ।


পরিশেষে, বিদ্যালয়ের বিভিন্ন খেলাধুলায় ও বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণকারি ছাত্র ছাত্রী বিজয়ীদের হাতে অতিথিবৃন্দ পুরুস্কার তুলেদেন।



আরো পড়ুন:




একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

যোগাযোগ ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget