Articles by "বিনোদন"

 


নালিতাবাড়ী ভোগাই নদীতে মাছ ধরা উৎসব অনুষ্ঠিত। 

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার ভোগাই নদীতে মাছ ধরা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৩ অক্টোবর রবিবার সকাল থেকে উপজেলার নাকুগাঁও স্থলবন্দর এলাকায় ভোগাই নদীতে দল বেঁধে মাছ ধরতে   নামেন সৌখিন মৎস শিকারীরা। জানা গেছে, বর্ষা মৌসুম শেষে অক্টোবর নভেম্বর মাস এলে খাল বিল নদ নদীর পানি কমে যায়। 

এসময় সৌখিন গ্রামবাসীরা মিলে পলো, ঝাঁকিজাল, ছিপজাল, ঠেলাজাল, লাঠি ও বিভিন্ন ফাঁদ নিয়ে দলবেঁধে জলাশয়ে মাছ ধরতে  মেতে উঠেন। উপজেলার পাঁচগাও, রাজনগর, দোহালিয়া, সন্নাসীভিটা ও কোননগর গ্রামের প্রায় দুই শতাধিক মানুষ চারআলী ব্রীজপাড় থেকে মাছ ধরতে নামেন। মাছ শিকারী ও স্থানীয়রা জানান তারা আগে থেকেই নির্ধারন করেন যে কবে তারা মাছ ধরবেন। 

মাছ ধরা উৎসবে অংশগ্রহণকারী পাঁচগাও গ্রামের আহাম্মদ আলী তিনি ৮ কেজি ওজনের একটি আইড় মাছ ধরে শিকারীদের তাক লাগিয়ে দিয়েছেন। তিনি বলেন, প্রতিবছর আমরা ৪/৫ গ্রামের শিকারী মিলে নিজেদের তৈরি পলো ও জাল নিয়ে জেলার ভোগাই , চেল্লাখলী , মহারশি মালিঝি নদী ও ধলী বিলে বর্ষা শেষে   কার্তিক মাসে দলবেঁধে মাছ ধরার উৎসবে অংশগ্রহণ করেন। 

এতে কেউ মাছ ধরতে না পারলেও আনন্দ উপভোগ করেন। এ বিষয়ে নালিতাবাড়ী উপজেলা মৎস কর্মকর্তা এমদাদুল হক বলেন, গ্রাম বাংলার প্রাচীন ঐতিহ্য দলবেঁধে উৎসবমুখর পরিবেশে মাছ ধরার কোন আইন নেই। তবে এ জাতীয় কোন উৎসব করতে হলে আগে  প্রশাসনের অনুমতি নিতে হয়। 

ঝিনাইগাতী শেরপুর। 

আরো পড়ুন:


 


ঝিনাইগাতীতে খ্রীষ্টিয়ান এন্ডেভার  সোসাইটির ৩৮তম যুব সম্মেলন উদযাপন 

শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে ক্ষুদ্র নৃ- গোষ্ঠির খ্রীষ্টান এন্ডেভার  সুসাইটির ৩৮তম যুব সম্মেলন উদযাপিত হয়েছে। ২০ অক্টোবর বৃহস্পতিবার  উপজেলার কাংশা ইউনিয়নের গজনী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে খ্রীষ্ঠান এন্ডেভার  সোসাইটি জিবিসি বাংলাদেশ এ সম্মেলনের আয়োজন করে। '' ফলবান হও '' এ প্রতিপাদ্য বিষয় কে সামনে রেখে এ যুব সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। 

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রনালয়ের প্রতি মন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি। বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার নালিতাবাড়ি সার্কেল আফরোজা নাজনীন,   ঝিনাইগাতী উপজেলা চেয়ারম্যান এসএম আব্দুল্লাহেল ওয়ারেজ নাইম, ঝিনাইগাতী উপজেলা ভারপ্রাপ্ত  নির্বাহী কর্মকর্তা,সহকারি কমিশনার (ভুমি) আশরাফুল কবীর।

 খ্রীষ্ঠিয়ান এন্ডেভার সোসাইটির সভাপতি মি,জেমস যিদিয়েল রেমার সভাপতিত্বে ও সুরঞ্জ দিবরার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন জিবিসির সভাপতি পঙ্কজ মারাক, জিবিসির জেনারেল সেক্রেটারি অভয় চিসিম,কেন্দ্রীয় ট্রাইভাল  ওয়েল ফেয়ার এসোসিয়েশনের সহ সভাপতি শ্রীবরদী উপজেলা ট্রাইবাল ওয়েল ফেয়ার এসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান প্রাঞ্জল এম সাংমা,  ঝিনাইগাতী উপজেলা ট্রাইবাল এসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান মি, নবেশ খকশী প্রমুখ।

 এ অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ঝিনাইগাতী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুল আলম ভূইয়া, ওসি তদন্ত আবুল কাশেমসহ জেলা, উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের কর্মকর্তা কর্মচারী এবং বিভিন্ন স্থান থেকে আগত ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর যুবক ও যুবতীরা।  শুরুতেই ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিল্পীদের নৃত্য পরিবেশের মাধ্যমে ফুলেল শুভেচছা জানিয়ে  অতিথিদের বরন করে নেয়া হয়। পরে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিল্পীদের সমন্বয়ে এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। 
এম শাহজাহান ঝিনাইগাতী শেরপুর

আরো পড়ুন:


 



শিক্ষার্থীর মাঝে শিক্ষা উপকরণ ও নগদ অর্থ বিতরণ


ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ ও রানীশংকৈল উপজেলার দরিদ্র মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করা হয়েছে।


শুক্রবার বিকেলে রানীশংকৈল উপজেলার গোগোর আব্দুল জব্বার উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে, বাক্সা সুন্দরপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সোহেল রানার, নিজ উদ্যোগে এ  শিক্ষা সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। 


বিতরণ অনুষ্ঠানে গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের এক মিলনমেলার আয়োজন করা হয়। তাদের হাতে তুলে দেয়া হয় শিক্ষা উপকরণ।এসব উপকরণ পেয়ে তারা আনন্দে মুখর শিক্ষার্থীরা। 


শিক্ষক সোহেল রানা দীর্ঘ দিন থেকে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ কর্মসূচি পালন করে আসছে, এটি ছিল তার ১৬তম কার্যক্রম। এর আগেও এলাকায় বিদ্যুৎ এর অভাবে পড়ালেখায় পিছিয়ে পড়া দারিদ্র্য শিক্ষার্থীদের বাসায় বিদ্যুৎ এর ব্যাবস্থা করেছেন তিনি। 


শিক্ষক সোহেল রানার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন শিক্ষানুরাগী ব্যাক্তিত ও লেহেম্বা ইউনিয়ন বিএনপির প্রচার সম্পাদক একরামুল হক । বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পীরগঞ্জ অনলাইন জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু তারেক বাঁধন , শিক্ষার্থী রুবাইয়দা, সাথী,মীম,নিলা আক্তার, বাপ্পী, তারেক আজিজ প্রমুখ।


এ সময় উপস্থিত ছিলেন  শিক্ষানুরাগী ব্যাক্তিত হাফিজুল, সৈয়দুল, হানিফা সহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা ।


দুই উপজেলার বিভিন্ন বিদ্যালয়ের ১৫০ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে শিক্ষা উপকরণ খাতা, কলম, উপবৃত্তি (নগদ অর্থ)  বিতরণ করা হয়।


আরো পড়ুন:



 


সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ঢুকতে লাগে ২০ টাকার টিকিট ! 


ঠাকুরগাঁয়ের একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ২০ টাকা প্রবেশমূল্য নির্ধারণ করা নিয়ে বিব্রতকর অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।


ঘটনাটি জেলার হরিপুর উপজেলার চরভিটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রবেশের জন্য প্রতিজনের নিকট থেকে ২০ টাকা মূল্যের টিকিট বিক্রির অভিযোগ উঠেছে অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এরফান আলীর বিরুদ্ধে।



উপজেলাবাসীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে মঙ্গলবার (১২ জুলাই) হরিপুর চরভিটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায়, বিদ্যালয়ের মূল ফটকে তালাবন্ধ। বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষের পাশেই রয়েছে ছোট্ট একটি প্রবেশ পথ। টিকিট হাতে বসে আছেন এক আনসার সদস্য। বিদ্যালয়ে প্রবেশের জন্যে প্রতিজনের নিকট থেকে ২০ টাকা মূল্যে বিক্রি করা হচ্ছে টিকিট। 


টিকিট ব্যবস্থার কারণ জানতে চাইলে বিক্রেতা আনসার সদস্য দর্শন বলেন, চরভিটার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এরফান আলী আমাকে টিকিট বিক্রি করতে বলেছেন।



জানা গেছে, চরভিটা বিদ্যালয়ের মাঠ প্রাঙ্গণটি বেশ দৃষ্টিনন্দন ভবে সাজানো। পার্কের মতো সৌন্দর্যের কারণে আশপাশের মানুষ সেখানে ঘুরতে আসেন। উপজেলায় তেমন বিনোদনের ব্যবস্থা না থাকায় ঈদ বা উৎসবের দিন প্রচুর মানুষ চরভিটা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভিড় করে। এখানে এই সুযোগটাই কাজে লাগিয়ে অর্থ আয়ের চিন্তা থেকে প্রধান শিক্ষক টিকিটের ব্যবস্থা করেছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। 


চরভিটা বিদ্যালয়ে ঘুরতে আসা দর্শনার্থী আসিকুল ইসলাম আসিক, মরজিনা বলেন, চরভিটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়টি দৃষ্টিনন্দন একটি প্রতিষ্ঠান। তাই আমরা এই বিদ্যালয়ে ঘুরতে এসেছি। কিন্তু বিদ্যালয়ের মধ্যে প্রবেশ করতে ২০ টাকা দিয়ে টিকিট ক্রয় করতে হয়েছে, যা দুঃখজনক। 


চরভিটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এরফান আলীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বিদ্যালয়ে প্রবেশের ক্ষেত্রে ২০ টাকা নেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেন। বলেন, ঈদের দিন ২০ টাকা মূল্যে ২০০ টিকিট বিক্রি হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ঈদের তিন দিন পর্যন্ত বিদ্যালয় পরিদর্শনের ব্যবস্থা রাখার চিন্তাভাবনা আছে দর্শনার্থীদের চাহিদা বিবেচনায় দিন বাড়ানো হতে পারে। 



হরিপুর উপজেলা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষা অফিসার এম.এ.এস রবিউল ইসলাম বলেন, সরকারি বিদ্যালয়ে প্রবেশের জন্য কোনও প্রকার টিকিট বিক্রি করতে পারবে না। কী কারণে প্রধান শিক্ষক টিকিট বিক্রি করছেন, তা ঠিক বুঝতে পারছি না।

 বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

হরিপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বহিৃ শিখা আশা বলেন, 

আমাকে জানিয়েছিল ঈদের দুই দিন লোকজন আসবে কিছু টাকা উঠলে বাচ্চাদের খেলনা গুলো কিনবে৷ বিষয়টা আমি নিজে পরিদর্শন করে দেখব। 


এই বিষয়ে ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক মাহাবুবুর রহমান বলেন, বিষয়টি ঠিক জানা ছিল না। হরিপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) সাথে কথা বলে বিষয়টি দেখা হবে। 


আরো পড়ুন:

Afran Nisho: ভারতীয় ওয়েব সিরিজে আফরান নিশো
জয়নাল হত্যা মামলার সব আসামি খালাস; পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থার নির্দেশ
ফেনীর দাগনভূঁঞায় মোটরসাইকেল চোরাই চক্রের ৩ সদস্য গ্রেফতার 
ফেনীর ফুলগাজীতে দুই মহিলা ছিনতাইকারী গ্রেফতার
বালিয়াডাঙ্গীতে এক পরিবারের চার সন্তানই প্রতিবন্ধী
পুতিনের বেপরোয়া পদক্ষেপ ইউরোপকে সরাসরি হুমকি দিচ্ছে 
Russia Ukrain: বাংলাদেশি জাহাজে হামলার জন্য ইউক্রেনকে দুষছে রাশিয়া 
সাড়ে ১২ কোটি মানুষ টিকার আওতায়
নিয়ন্ত্রণহীন ভোজ্য তেলের বাজার
ইউক্রেনে নাজুক অবস্থায় পড়ে গেছি: প্রতিমন্ত্রী


ইফতার পার্টিতে সালমান শাহরুখ সঞ্জয় এক কাতারে
Salman Shah-Rukh and Sanjay in a row at Iftar party



করোনার কারণে গত দু-বছর বন্ধ থাকবার পর এ বছর আবারও ভারতের মহারাষ্ট্রের প্রাক্তন বিধায়ক বাবা সিদ্দিকী আয়োজন করেছিলেন গ্র্যান্ড ইফতার পার্টি। সেখানে উপস্থিত সালমান, শাহরুখ, হিনা খান, এশা গুপ্তাসহ আরও অনেক বলিউড অভিনয়শিল্পীরা।

আরো পড়ুন: কিয়েভে নতুন রুশ হামলা, আমেরিকাকে সতর্ক করেছে রাশিয়া

ইফতার পার্টির সন্ধ্যায় কালো শার্ট ও নীল জিন্সে হাজির হয়েছিলেন সালমান। অন্যদিকে কালো পাঠানি স্যুটে পার্টিতে আসেন শাহরুখ খান।


এর আগে শাহরুখ ও সালমানের মধ্যে মনমালিন্য থাকলেও বাবা সিদ্দিকীর ২০১৪ সালের ইফতার পার্টিতে তাদের পুনরায় একত্রিত করেন বাবা সিদ্দিকী। এরপর থেকে শাহরুখ ও সালমানের মধ্যে দ্বন্দের অবসান ঘটে।


প্রসঙ্গত, শাহরুখ খানের আগামী সিনেমা ‘পাঠান’। সিদ্ধার্থ আনন্দ পরিচালিত এই সিনেমায় একটি অতিথি চরিত্রে দেখা যাবে সালমান খানকে। আবার সালমানের নতুন সিনেমা ‘টাইগার থ্রি’তেও বিশেষ চরিত্রে হাজির হবেন কিং খান।



আরো পড়ুন:

 বক্স অফিসে ঝড় তুলল যশ-এর ‘KGF 2’
Yash's 'KGF 2' took the box office by storm


গতমাসের শেষের দিকেই মুক্তি পেয়েছে এস এস রাজামৌলি পরিচালিত ‘আর আর আর’। এই ছবি মুক্তির আগে থেকেই রেকর্ড ভাঙতে শুরু করেছিল বক্সঅফিসে। এই ছবির হাত ধরেই রাজামৌলি নিজের পরিচালিত আরো এক ছবি ‘বাহুবলি ২’এর রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। এবার মুক্তির আগেই ‘আর আর আর’এর রেকর্ড ভাঙলো প্রশান্ত নীল পরিচালিত ও যশ অভিনীত ‘কেজিএফ ২’। মুক্তির আগেই বক্সঅফিসে ২০ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে এই ছবি।

আরো পড়ুন: কিয়েভে নতুন রুশ হামলা, আমেরিকাকে সতর্ক করেছে রাশিয়া

১৪’ই এপ্রিল বড়পর্দায় মুক্তি পেল প্রশান্ত নীল পরিচালিত দক্ষিণী অভিনেতা যশ অভিনীত ‘কেজিএফ চ্যাপটার ২’। এই দীর্ঘ প্রতীক্ষিত ছবি মুক্তি পেতেই রীতিমতো উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়েছে দর্শকরা। অনেকদিন আগে থেকেই এই ছবি নিয়ে মাতামাতি শুরু হয়ে গিয়েছিল অভিনেতার ভক্তদের মাঝে। তবে সম্প্রতি বক্সঅফিসে এই ছবির জনপ্রিয়তা দেখে মহারাষ্ট্রের মুম্বাই ও পুনেতে প্রেক্ষাগৃহের টিকিটের দাম বাড়ানো হয়েছে। দেড় হাজারটা ২০০০ পর্যন্ত করা হয়েছে।


এই মুহূর্তে সোশ্যাল মিডিয়া সরগরম রয়েছে ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’এর চর্চায়। প্রথমদিন থেকেই প্রতিক্রিয়া আসা শুরু হয়ে গিয়েছে। এখনো পর্যন্ত সবটাই ইতিবাচক, তা সোশ্যাল মিডিয়ার পাতায় চোখ রাখলেই স্পষ্ট হবে। প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছেন চিত্র সমালোচকদের পাশাপাশি অভিনেতার অগণিত ভক্তরাও। এমনকি অভিনেতাও এই সকল ভালোবাসার জন্য আন্তরিক ধন্যবাদও জানিয়েছেন তার ভক্তদের। উল্লেখ্য, এই ছবিতে যশ ছাড়াও দেখা মিলেছে সঞ্জয় দত্ত, প্রকাশ রাজ, রবীনা ট্যান্ডন, শ্রীনিধি শেট্টি, রামচন্দ্র রাজু, রাও রমেশ ছাড়াও রয়েছেন একাধিক বড় বড় তারকাদের।


উল্লেখ্য, থালাপতি বিজয় অভিনীত ‘বিস্ট’ মুক্তি পেয়েছে একইসাথে। ‘বিস্ট’ও রীতিমতো বক্সঅফিস কাঁপাচ্ছে। এই ছবি কেজিএফের বাজার কিছুটা হলেও কেড়েছে, তা বলাই বাহুল্য। এই ছবিটি মুক্তি না পেলে আরও কিছুটা বক্সঅফিসে ব্যবসা করতে পারত ‘কেজিএফ ২’। ‘কেজিএফ ২’ মুক্তি পাওয়ার পরেই শাহিদ কাপুর অভিনীত ‘জার্সি’র মুক্তির দিন পিছিয়ে দিয়েছেন ছবির পরিচালক। আগামী ২২’শে এপ্রিল মুক্তি পেতে চলেছে এই ছবি। দর্শকদের মাঝে দক্ষিণী ছবির রমরমা দেখেই মুক্তির দিন পিছিয়েছেন ছবির পরিচালক।


দক্ষিণী ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি এখন প্রায়ই টেক্কা দিচ্ছে বলিউডের পাশাপাশি হলিউডকেও, যা রীতিমত চিন্তার ভাঁজ ফেলেছে বহু পরিচালকদের কপালে। অনেকেই এখন ঝুঁকছেন দক্ষিণী তারকাদের দিকে। বলিউডের একাধিক তারকাকে এখন প্রায়ই দেখা যাচ্ছে দক্ষিণী ছবিতে। দক্ষিণের ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি এখন যে সবদিক দিয়েই বলিউডের থেকে এগিয়ে রয়েছে, তা আর আলাদাভাবে বলার অপেক্ষা রাখছে না।



আরো পড়ুন:




যে কারণে ১০ বছর মিডিয়া থেকে দূরে থাকেন বিজয়
That is why Vijay has been away from the media for 10 years


দক্ষিণী সিনেমার অভিনেতা থালাপাতি বিজয়ের পরবর্তী সিনেমা ‘বিস্ট’। নেলসন পরিচালিত এ সিনেমা আগামী ১৩ এপ্রিল, বিশ্বব্যাপী একাধিক ভাষায় মুক্তি পেতে যাচ্ছে। মুক্তিকে সামনে রেখে প্রচারের জন্য নানা পরিকল্পনা সাজিয়েছেন নির্মাতারা। ক্রমান্বয়ে সেসব কাজ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন সংশ্লিষ্টরা।


দীর্ঘ ১০ বছর মিডিয়াকে কোনো সাক্ষাৎকার দেননি বিজয়। কিন্তু ‘বিস্ট’ সিনেমার প্রচারের অংশ হিসেবে একটি টেলিভিশন চ্যানেলকে সাক্ষাৎকার দিয়েছেন। তা-ও এই অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন ‘বিস্ট’ সিনেমার পরিচালক নেলসন। গত ১০ এপ্রিল প্রচার হয় এই পর্বটি। এক দশক মিডিয়ার সঙ্গে কথা না বলার কারণ এই অনুষ্ঠানে ব্যাখ্যা করেছেন বিজয়।

আরো পড়ুন: পরিচালনায় শাহরুখ-পুত্র, ওয়েব সিরিজের শ্যুটিং শুরু করলেন আরিয়ান

ব্যস্ত থাকার কারণে মিডিয়ার সঙ্গে কথা বলেননি বিজয়—বিষয়টি আসলে তা নয়। বরং ইচ্ছাকৃতভাবে মিডিয়াকে এড়িয়ে গিয়েছেন তিনি। বিজয় বলেন, ‘এমন নয় যে আমি ব্যস্ত ছিলাম, যার কারণে নিজের সিনেমা নিয়েও সাক্ষাৎকার দিতে পারিনি। আমি চাইলেই সময় বের করে সাক্ষাৎকার দিতে পারতাম। কিন্তু সচেতনভাবেই মিডিয়া থেকে দূরে ছিলাম। অবশ্য এই ঘটনার পেছনে খারাপ একটি কারণ আছে; যা ১০ বছর আগে ঘটেছিল। আর ওই সময়ে মিডিয়া থেকে দূরে থাকার সিদ্ধান্ত নিই।’  


দশ বছর আগে ঘটে যাওয়া খারাপ ঘটনার বর্ণনা দিয়ে বিজয় বলেন—‘আমি একটি সাক্ষাৎকার দিয়েছিলাম। তাতে আমি যা বলিনি তার জন্য আমাকেই দায়ী করে বিতর্ক তৈরি করেছিল। আমার পরিবার, বন্ধু-বান্ধব এই সাক্ষাৎকার পড়ে বিস্মিত হয়েছিল। তারা বলেছিল, বিশ্বাস হচ্ছে না তুমি এসব কথা বলেছো। তাদেরকে বলেছিলাম, এসব আমি বলিনি। পরিবার, বন্ধু-বান্ধবরা আমার কাছাকাছি থাকে, তাই তাদের আমি বিষয়টি ব্যাখ্যা করে বুঝাতে পেরেছি। কিন্তু অন্য সব মানুষের কাছে গিয়ে তো ব্যাখ্যা করা কঠিন। ওই সময়ে সিদ্ধান্ত নিই মিডিয়া থেকে দূরে থাকব।’


এক সময় বিনোদনের নিউজ গুরুত্বসহকারে দেখতেন বিজয়। কিন্তু সেই জায়গা থেকে সরে এসেছেন। এখন পাঠক হিসেবে সমসায়মিক ঘটনার খবর পড়ে থাকেন বিজয়।


‘বিস্ট’ সিনেমায় বিজয়ের বিপরীতে অভিনয় করেছেন পূজা হেগড়ে। এছাড়াও অভিনয় করছেন—ভিটিভি গণেষ, অপর্ণা দাস, যোগী বাবু, লিলিপুট ফারুকী, অঙ্কুর অজিত প্রমুখ। সান পিকচার্সের ব‌্যানারে নির্মিত হয়েছে তামিল ভাষার অ‌্যাকশন-ড্রামা ঘরানার এই সিনেমা।



আরো পড়ুন:





Holy Foods ads

Holy Foods ads

যোগাযোগ ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget