Latest Post

নিজস্ব প্রতিনিধি: সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘অশ্লীল’ ছবি ও ভিডিও সরানোর জন্য ফের পরীমণিকে আইনি নোটিশ। নোটিশ পাঠিয়েছেন যৌথভাবে বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী খন্দকার হাসান শাহরিয়ার এবং ঢাকা জজ কোর্টের আইনজীবী ইসমাতুল্লাহ লাকী তালুকদার।

এবার এই নোটিশের পরই কার্যত অসুস্থ হয়ে পড়েন ঢাকা চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেত্রী পরীমণি। এক সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ‘আমি এখনো নোটিশ হাতে পাইনি। পাওয়ার পর এ নিয়ে কথা বলতে পারব। এর আগে আদালত থেকে আমাকে যখন বলা হয়েছিল, তখন ১ ঘণ্টার মধ্যে ছবিগুলো সরিয়ে ফেলি। এখন যে ভিডিওর কথা বলা হয়েছে, সেগুলো আমি শেয়ার করিনি। বরং আমার ব্যক্তিগত ভিডিও অন্য কেউ ফেসবুকে দিয়েছে। নোটিশ হাতে না পেলেও বিভিন্ন গণমাধ্যমে আজকের খবরটি পেয়েছি। দেখে আমি অসুস্থ হয়ে পড়েছি। এমন অত্যাচারের মানে হয় না।’

পরীমণি আরও বলেন, ‘আমার ফেসবুক তো সবার জন্য খোলা। একটু দেখে নিন আর তারপর বলুন আমার পেজে ঠিক কোন ভিডিওটা অশ্লীল। আমার পেজে এমন কোনো ভিডিও নেই যেটা সরাতে হবে। যদি সরাতেই হয় তাহলে আমাকে অপমান করে যারা ভিডিও বানিয়েছে, তাদের সরাতে হবে। ফেসবুক সম্পর্কে আগে তো জানতে হবে তাদের।’

উল্লেখ্য, এই ঘটনার সূত্রপাত ১লা সেপ্টেম্বর। মাদক মামলায় জেল থেকে জামিনে মুক্তি পাওয়ার পরই প্রকাশ্যে আসেন তিনি। সেখানে গাড়ি থেকে অনুগামীদের উদ্দেশ্যে হাত নাড়াতে দেখা গিয়েছিল তাঁকে। কিন্তু ভালো ভাবে লক্ষ করলে দেখা যাবে সেই সময় তাঁর হাতে লেখা ছিল ‘ডোন্ট লাভ মি বিচ’। পরবর্তীতে ১৫ই সেপ্টেম্বর ফের আদালতে দেখা গিয়েছিল তাঁকে, ওইদিন ও তাঁর হাতের তালুতে লেখা ছিল অশ্লীল কথা। শুধু এখানেই শেষ নয়। নিজের ৩০ তম জন্মদিন উপলক্ষে ঢাকার হোটেল রেডিসন ব্লুতে উন্মাদের মত নাচতে দেখা গিয়েছে তাঁকে, সেই ভিডিও ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। তবে পরীমণির কথায় জন্মদিনের এতদিন পর হঠাৎ আজ এ বিষয়টি কেন তুলে আনলেন ওই দুই আইনজীবী? তাঁর কথায় যারা তাঁকে ঘিরে ভিডিও তৈরি করেছেন তাঁদের বিরুদ্ধে আইনত ব্যবস্থা নেবেন পরী।

উত্তর আফ্রিকার দেশ সুদানে সোনা খনি ধসে কমপক্ষে ৩৮ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও কয়েকজন। মঙ্গলবার (২৮ ডিসেম্বর) দেশটির পশ্চিম খোরদোফান প্রদেশের একটি পরিত্যক্ত সোনার খনি ধসে পড়লে প্রাণহানির এই ঘটনা ঘটে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তাসংস্থা এপি।

সুদানের রাষ্ট্র পরিচালিত খনি কোম্পানি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, রাজধানী খার্তুম থেকে ৭০০ কিলোমিটার (৪৩৫ মাইল) দক্ষিণে ফুজা গ্রামে মঙ্গলবার একটি পরিত্যক্ত খনি ধসে পড়েছে। এতে অনেকেই আহত হয়েছেন বলা হলেও এর সুনির্দিষ্ট কোনো সংখ্যা তারা জানায়নি।


ভারতের দক্ষিণী সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেত্রী সামান্থা রুথ প্রভু। ব্যবসাসফল সিনেমা উপহার দিয়ে দর্শক মনে জায়গা করে নিয়েছেন। সিনেমার পাশাপাশি ব্যক্তিগত নানা কারণে বছরজুড়েই আলোচনায় ছিলেন এই অভিনেত্রী।

ওয়েব সিরিজ নিয়ে বিতর্ক: হিন্দি ভাষার ‘ফ্যামিলি ম্যান-টু’ ওয়েব সিরিজে অভিনয় করে আলোচনায় আসেন সামান্থা রুথ প্রভু। এতে তার অভিনয় নজর কাড়লেও তার চরিত্রটি নিয় বিতর্কও হয়। ওয়েব সিরিজটিতে একজন তামিল বিদ্রোহী হিসেবে দেখানো হয়েছে, যার সঙ্গে পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই-এর যোগাযোগ আছে। এখানেই শেষ নয়, এই অভিনেত্রীর পোশাকের সঙ্গে লিবারেশন টাইগার্স অব তামিল ইলম-এর ইউনিফর্মের মিল খুঁজে পেয়েছেন কেউ কেউ। এরপর এটি নিয়ে আপত্তি তোলে তামিলনাড়ু সরকার। এটির মুক্তি বন্ধ করতে কেন্দ্রীয় সম্প্রচার মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকরের কাছে চিঠিও পাঠানো হয়। এছাড়া সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও এটি নিষিদ্ধে দাবি জানানো হয়। চিঠিতে তামিলনাড়ু সরকার দাবি করে, ‘দ্য ফ্যামিলি ম্যান টু’ ওয়েব সিরিজে লিবারেশন টাইগার্স অব তামিল ইলমের যোদ্ধাদের অপমান করা হয়েছে। এছাড়া এতে উল্লেখ করা হয়, এই ওয়েব সিরিজ ‘নিন্দনীয়’ ও ‘বিদ্বেষমূলক’।

নাগা চৈতন্যের সঙ্গে ডিভোর্স: ২০১০ সালে তেলেগু ভাষার ‘ইয়ে মায়া চেসাভ’ সিনেমায় একসঙ্গে অভিনয় করেন নাগা চৈতন্য ও সামান্থা। সিনেমার সেটেই তাদের প্রথম পরিচয়। তারপরই প্রেমের সম্পর্কে জড়ান তারা। এরপর লুকিয়ে দীর্ঘদিন প্রেম করেন এই জুটি। ২০১৭ সালের ৬ অক্টোবর বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তারা। অনেক জল্পনার অবসান ঘটিয়ে গত ২ অক্টোবর ডিভোর্সের ঘোষণা দেন নাগা চৈতন্য ও সামান্থা।

গর্ভপাত নিয়ে গুঞ্জন: সামান্থা-নাগার ডিভোর্সের কারণ নিয়ে নানা গুঞ্চন শোনা গেছে। এই অভিনেত্রী গর্ভপাত করেছেন বলেও খবর চাউর হয়। তবে এসব গুজব উড়িয়ে দেন এই অভিনেত্রী। তিনি জানান, ব্যক্তিগত সংকটের সময় আপনাদের কষ্ট আমাকে আবেগাপ্লুত করেছে। আমার জন্য সহানুভূতি, উদ্বেগ দেখানো এবং আমাকে নিয়ে যে মিথ্যা গুঞ্জন ছড়াচ্ছে তা প্রতিহত করার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ। তারা বলছে, আমার অন্য কারো সঙ্গে সম্পর্ক রয়েছে, বাচ্চা নিতে চাইনি, সুযোগ সন্ধানী, আর এখন বলছে আমি গর্ভপাত করিয়েছি। ডিভোর্স খুবই কষ্টদায়ক একটি ব্যাপার। আমাকে এটি থেকে সেরে ওঠার সময় দিন। আমাকে প্রতিনিয়ত ব্যক্তিগত বিষয়ে আক্রমণ করা হচ্ছে। কিন্তু আমি প্রতিজ্ঞা করছি, আমি এগুলো কখনো মেনে নিবো না এবং আমাকে ভাঙার জন্য যা করছে তা সফল হতে দিবো না।

মানহানির মামলা: অভিনেত্রী সামান্থা রুথ প্রভু। নাগা চৈতন্যের সঙ্গে তার বিচ্ছেদের কারণ নিয়ে শোবিজ অঙ্গনে কানাকানি কম হয়নি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অনেকে বিদ্রূপও করেছেন। এজন্য একজন অ‌্যাডভোকেট ও কয়েকটি ইউটিউব চ‌্যানেলের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা দায়ের করেন সামান্থা।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কটূক্তি: ডিভোর্সের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে নাগার সকল ছবি মুছে ফেললেন ‘রাঙ্গাস্থালাম’ সিনেমাখ্যাত এই অভিনেত্রী। এটি নিয়ে পরবর্তী সময়ে নাগা চৈতন্যের ভক্তদের রোষানলে পড়েন সামান্থা। তাকে নানাভাবে কটূক্তি করা হয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

মুম্বাই পাড়ি দেওয়া নিয়ে গুঞ্জন: বেশ কিছুদিন ধরে গুঞ্জন উড়ছে, হিন্দি প্রজেক্টে নিয়মিত কাজ করতে চাইছেন সামান্থা। এজন্য মুম্বাইয়ে বাড়ি নিয়েছেন। সেখানেই স্থায়ী হতে চান তিনি। যদিও এই গুঞ্জন উড়িয়ে দিয়ে সামান্থা বলেন, ‘আমি জানি না কোথা থেকে এসব গুজব ছড়াচ্ছে। অন্য গুঞ্জনগুলোর মতো এটিও মিথ্যা। হায়দরাবাদ আমার বাড়ি এবং এটিই আবার বাড়ি থাকবে। হায়দরাবাদ আমাকে অনেক কিছু দিয়েছে। এখানেই সুখে শান্তিতে থাকতে চাই।’

আইটেম গানে আপত্তি: প্রথমবারের মতো আইটেম গানে কোমর দুলিয়েছেন সামান্থা। ‘পুষ্পা: দ্য রাইজ’ সিনেমার ‘ও আন্তাভা, ও ও আন্তাভা’ শিরোনামের এই গান নিয়ে আপত্তি তোলে অন্ধ্র প্রদেশের একটি পুরুষদের সংস্থা। তাদের অভিযোগ, এই গানে পুরুষদের বিকৃত মানসিকতার এবং যৌন পিপাসু হিসেবে দেখানো হয়েছে।

‘দ্য ফ্যামিলি ম্যান ২’-এ যৌনদৃশ্য, ‘পুষ্পা’-য় আইটেম গান— বিগত কয়েক মাসে পর্দায় ছক ভেঙেছেন সামান্থা প্রভু। ব্যতিক্রম ঘটেনি বাস্তবেও।

কাজ থেকে ছুটি নিয়ে আপাতত গোয়ায় ছুটি কাটাচ্ছেন সামান্থা। আর তাঁর সেই অবসর যাপনের ছবি দেখে চক্ষু চড়কগাছে অনুরাগীদের। সেখানে দেখা যাচ্ছে, জলের মধ্যে স্নানপোশাক পরে গায়ে রোদ মেখে নিচ্ছেন ‘ফ্যামিলি ম্যান’-এর রাজি। তাঁর হাসি যেন থামতেই চাইছে না। রংবাহারি স্নানপোশাকে চেনা ছকের কিছুটা বাইরে তিনি। সেই মুহূর্তই লেন্সবন্দি করে ভাগ করে নিলেন অনুরাগীদের সঙ্গে।

সচরাচর এ রকম খোলামেলা পোশাকে খুব একটা ধরা দেন না সামান্থা। কিন্তু পেশাগত পরিসরের সঙ্গেই পরিবর্তন আনছেন ব্যক্তিজীবনেও।

সম্প্রতি, 'দ্য কপিল শর্মা শো'-তে 'জার্সি' ছবির প্রচার সারতে হাজির হয়েছিলেন শাহিদ কাপুর এবং ম্রুণাল ঠাকুর। অনুষ্ঠান চলাকালীন মঞ্চের মাঝেই 'জার্সি'র একাধিক চুম্বন দৃশ্য নিয়ে শাহিদের সঙ্গে খুনসুটিতে মেতে উঠলেন কপিল।

ছবিতে এই চুম্বন দৃশ্যের কথায় নিজের চিরাচরিত মজাদার ভঙ্গিতে শাহিদের উদ্দেশে কপিল বলে উঠলেন ' রেসপিরেটরি থেরাপি'-র মাধ্যমে নিজের বহু ছবির নায়িকার মুখে অক্সিজেন পুরে দিয়েছেন এই বলি-তারকা। বলি-তারকার উদ্দেশে এরপর তাঁর প্রশ্ন, 'এই যে আপনি এই সমাজসেবামূলক কাজকর্মগুলো করেন তা শুধুই স্ক্রিপ্ট এর নির্দেশে নাকি নিজের মনের ডাকে?' হাসতে হাসতে শাহিদের জবাব, 'দ্যাখো, ব্যাপারটা হল মুখ দিয়েই 'এই কাজটা' করে থাকি, কিন্তু তার সঙ্গে খানিকটা মনের ডাকও থাকে আর কী।

নির্মাতা শবনম ফেরদৌসীর প্রথম চলচ্চিত্র ‘আজব কারখানা’। প্রধান দুটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন কলকাতার পরমব্রত চট্টোপাধ্যায় ও ঢাকার শাবনাজ সাদিয়া ইমি। ৭ জানুয়ারি থেকে অনুষ্ঠিতব্য ২৭তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শন হতে যাচ্ছে ‘আজব কারখানা’। উৎসবের ‘এশিয়ান সিলেক্ট—নেটপ্যাক অ্যাওয়ার্ড’ বিভাগে প্রদর্শনের জন্য মনোনীত হয়েছে ছবিটি। এদিকে ১৫ জানুয়ারি ২০তম ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবেও দেখানো হবে ছবিটি। ২০১৬-২০১৭ অর্থবছরে সরকারি অনুদান পায় ছবিটি। শুটিং হয়েছে ২০১৯ ও ২০২০ সালে। পরমব্রত এক ভিডিও বার্তায় বলেন, ‘চলচ্চিত্রটিতে অভিনয় করতে গিয়ে বাংলাদেশের লোকায়ত গান-বাজনার সম্ভার সম্পর্কে জেনেছি। এটা আমার জন্য বিশেষ পাওয়া। ছবিটি আগামী মাসে কলকাতা ও ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শন হবে। সবার কাছে অনুরোধ ছবিটি দেখুন।’ শবনম বলেন, ‘এর মধ্যে  সেন্সর বোর্ডেও ছবিটি জমা দিয়েছি। আশা করছি, সামনের সপ্তাহে ছাড়পত্র হাতে পাব। জানুয়ারির প্রথম অথবা ফেব্রুয়ারির শেষে ছবিটি হলে মুক্তি দেব।’

ঢাকায় এক নারী (৩৩) করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রনে সংক্রমিত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশে চারজন ওমিক্রনে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেল। গত ২০ ডিসেম্বর এই নারীর নমুনা সংগ্রহ করা হয়।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে করোনাভাইরাসের জিনোমের উন্মুক্ত বৈশ্বিক তথ্যভাণ্ডার জার্মানির গ্লোবাল ইনিশিয়েটিভ অন শেয়ারিং অল ইনফ্লুয়েঞ্জা ডাটাতে (জিআইএসএআইডি) এসব তথ্য জানা গেছে।

আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআরবি) ওই নারীর নমুনা সংগ্রহ এবং এসংক্রান্ত তথ্য জিআইএসএআইডির কাছে পাঠিয়েছে।

এর আগে গতকাল সোমবার ৫৬ বছর বয়সী পুরুষের শরীরে ওমিক্রন ধরা পড়ে। রোগী ঢাকায় অবস্থান করছেন। তারও আগে করোনাভাইরাসের নতুন ধরনটি দুজনের শরীরে শনাক্ত হওয়ার কথা জানিয়েছিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

স্বামী-সন্তান জিম্মি করে কক্সবাজারে গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় আরেক অভিযুক্ত ইস্রাফিল হুদা জয়কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

এ ধর্ষণ মামলার ৩ নম্বর আসামি ইসরাফিল হুদা জয়কে মঙ্গলবার (২৮ ডিসেম্বর) ভোরে অভিযান চালিয়ে চকরিয়ার বাস টার্মিনাল থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে জানিয়েছে ট্যুরিস্ট পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহিউদ্দিন।

গ্রেফতারকৃত জয় কক্সবাজার শহরের শফিউদ্দীনের ছেলে ও ঘটনার মূল হোতাদের একজন।

মঙ্গলবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে ট্যুরিস্ট পুলিশের অতিরিক্ত ডিআইজি মো. মুসলিম বলেন, এ পর্যন্ত মূল অভিযুক্ত আশিকসহ এজাহারনামীয় তিনজন এবং ভুক্তভোগী নারীর অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে আরও তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এ ঘটনায় গ্রেফতার জিয়া গেস্ট ইন ম্যানেজার রিয়াজ উদ্দিন ছোটন ৪ দিন এবং অন্য ৩ আসামি দুই দিনের রিমান্ডে রয়েছে।

দুই দিনের রিমান্ডে থাকা আসামিরা হলেন- কক্সবাজার শহরের দক্ষিণ বাহারছড়া এলাকার রেজাউল করিম শাহাবুদ্দিন (২৫), চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারার উলুবনিয়া এলাকার মামুনুর রশীদ (২৮) ও কক্সবাজার শহরের পশ্চিম বাহারছড়া এলাকার মেহেদী হাসান (২১)।

এদিকে, এ মামলায় এখন পর্যন্ত ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। রবিবার মাদারীপুর থেকে র‍্যাব গ্রেফতার করে মামলার প্রধান আসামি আশিকুল ইসলাম আশিককে। এর আগে ঘটনার পরদিনই র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার হন মামলার এজাহারভুক্ত আরেক আসামি হোটেল জিয়া গেস্ট ইনের ব্যবস্থাপক রিয়াজ উদ্দিন ছোটন।

ভুক্তভোগী নারীর অভিযোগ, গত ২২ ডিসেম্বর শহরের কবিতা চত্বর রোড সংলগ্ন এক ঝুপড়ি ঘরে আটকে রেখে তাকে ধর্ষণ করা হয়। পরে সেখান থেকে তাকে নিয়ে যাওয়া হয় হোটেল-মোটেল জোনের জিয়া গেস্ট ইন নামের আবাসিক হোটেলে। দ্বিতীয় দফায় সেখানেও তিনি ধর্ষণের শিকার হন। এ ঘটনায় ২৩ ডিসেম্বর চারজনের নাম উল্লেখ করে ও দু-তিনজনকে অজ্ঞাত আসামি করে মামলা করেন ভুক্তভোগীর নারীর স্বামী।

এদিকে রাজধানীর কাওরান বাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে সোমবার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন জানান, ধর্ষণের শিকার পর্যটক তার হৃদরোগে আক্রান্ত আট মাসের শিশুর চিকিৎসার জন্য দেশি-বিদেশি পর্যটকদের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় অর্থ জোগাতে স্বামী-সন্তানসহ কক্সবাজারে যান। পর্যটকদের কাছ থেকে অর্থ জোগানোর বিষয়টি জেনে তাদের কাছে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন ধর্ষক আশিক ও তার সহযোগীরা। এ অর্থ না দেওয়ায় ধর্ষণের শিকার হন ওই নারী।

মামলার তদন্তের দায়িত্ব পাওয়া সংস্থা ট্যুরিস্ট পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহিউদ্দিন জানান, মাদারীপুরে র‍্যাবের হাতে ধৃত ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি আশিককে আমাদের কাছে হস্তান্তর করার জন্য আদালতে আবেদন করা হয়েছে।

ঝালকাঠির লঞ্চ ট্রাজেডিতে সোমবার ভেসে ওঠা একটি লাশ নিয়ে দাবি করেছিল দুই পক্ষ। তবে শেষ পর্যন্ত বিরোধের নিষ্পত্তি ঘটেছে।

সোমবার থেকে ঘটনাস্থল ও আশেপাশের নদীতে লাশ ভেসে ওঠতে শুরু করেছে। এখন পর্যন্ত তিনজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, আগুন থেকে বাঁচার জন্য অনেকে অগ্নিদগ্ধ অবস্থাতেই নদীতে ঝাঁপ দিয়েছিলেন। তাদের লাশই এখন ভেসে ওঠছে।

সর্বশেষ ঝালকাঠির বিশখালীর নদীর সাচিলাপুরে অজ্ঞাত কিশোর (১৩) লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। মঙ্গলবার বেলা ২টার সময় ফায়ার সার্ভিস ও কোস্টগার্ড স্থানীয় লোকদের কাছ থেকে মোবাইল ফোনে খবর পেয়ে লাশটি উদ্ধার করে। লাশটির দেহ অর্ধপোড়া ছিল এবং গায়ে কালো রংয়ের সোয়েটার ও জিন্সের প্যান্ট ছিল।

এর আগে মঙ্গলবার সকাল ৯টায় ঝালকাঠির লঞ্চঘাট-সংলগ্ন মাঝনদী থেকে অজ্ঞাত যুবকের (৩২) লাশ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স। এই যুবকের মুখমণ্ডল পোড়া ছিল এবং অফ হোয়াইট শীতের পোশাক ও জিন্সের প্যান্ট পরা ছিল জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন মাস্টার ডিএডি শফিক । লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে লঞ্চ ট্রাজেডির ঘটনায় এই নিয়ে নিখোঁজ তিনজনের লাশ উদ্ধার হলো।

এদিকে ঝালকাঠির বিষখালী নদী থেকে সোমবার উদ্ধার হওয়া যুবকের লাশটি দাবি করে দুই পক্ষ। এক পক্ষের দাবি, উদ্ধার হওয়া ব্যক্তির নাম মো. শাকিল মোল্লা। তিনি নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার ইসদাইর গ্রামের মৃত শফি উদ্দিন মোল্লার ছেলে। আগুনে পুড়ে যাওয়া অভিযান-১০ লঞ্চের সহকারী বাবুর্চি ছিলেন তিনি। ফেসবুকে ছবি দেখে বোন সাহিদা আক্তার নিশা ভাইয়ের লাশ শনাক্ত করেন।

এদিকে আরেক পক্ষের দাবি, ওই যুবক বরগুনা সদরের বুড়িরচর ইউনিয়নের বড় লবণগোলা গ্রামের হাকিম শরীফ। তিনি ঢাকার এসএমডি কোম্পানিতে নিরাপত্তা প্রহরীর কাজ করতেন। হাতের আংটি ও পোশাক দেখে হাকিম শরীফের বড় ভাই আবদুল মোতালেব শরীফ লাশ শনাক্ত করেন। ফেসবুকে লাশ উদ্ধারের খবর ও ছবি দেখে সেটি তার ভাইয়ের বলে দাবি করেন তিনি। দুই পক্ষের দাবির কারণে উদ্ধার হওয়া লাশ হস্তান্তর নিয়ে বিপাকে প্রশাসনের কর্মকর্তারা।

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম বলেন, যেহেতু দুই পক্ষ উদ্ধার হওয়া যুবকের লাশ তাদের স্বজনের বলে দাবি করছেন। এ কারণে উভয় পক্ষের লোকজন আসার পর তাদের দেখানো হবে, উপযুক্ত প্রমাণের পর লাশ হস্তান্তর করা হবে। সেটা করা সম্ভব না হলে ডিএনএ পরীক্ষা করে হস্তান্তর করা হবে। তবে পুলিশ শেষ পর্যন্ত মধ্য রাতে এ লাশটির নারায়ণগঞ্জের শাকিল মোল্লার (৩৪) বলে নিশ্চিত হয়ে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে। শাকিল মোল্লা নারায়ণগঞ্জের শফিউদ্দিন মোল্লার পুত্র ও পেশায় সহকারী বাবুর্চি। আগুনে পুড়ে যাওয়া অভিযান-১০ লঞ্চের সহকারী বাবুর্চি ছিলেন তিনি।

সোমবার রাতে লঞ্চের তদন্ত কাজে ও আলামত সংগ্রহ করে প্রাথমিকভাবে পরীক্ষা নিরীক্ষা করছে সিআইডি। সিআইডির এএসপি পদ মর্যাদার অরিদ সরকারের নেতৃত্বে একটি টিম। মৃতের আলামত সংগ্রহ করে নিখোঁজদের সঠিক পরিবারের কাছে হস্তান্তরের জন্য দলে ডিএনএ বিশেষজ্ঞও রয়েছে। এই দুর্ঘটনায় আগুনে ব্যাপকভাবে পুড়ে যাওয়ায় অনেকের লাশ তার পরিবারের পক্ষে শনাক্ত করা সম্ভব হচ্ছে না। সেজন্যই এ টিমটি পুলিশকে সহযোগিতা করতে এসেছে। উদ্ধারকৃত লাশগুলোতে কমবেশি দগ্ধ হওয়ার চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হয়, শরীরে আগুন ধরে গেলে বাঁচার জন্য নদীতে ঝাঁপ দেয়ার পর নিখোঁজ ছিল।

এদিকে লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিখোঁজ ব্যক্তিদের তালিকা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে। বরগুনার জেলা প্রশাসন থেকে ঝালকাঠি জেলা প্রশাসনে পাঠানো তালিকা অনুযায়ী এখনো নিখোঁজ আছেন ৩৩ জন। আর ঝালকাঠি যুব রেড ক্রিসেন্টের তালিকা অনুযায়ী নিখোঁজ রয়েছেন ৫১ জন। আবার ঝালকাঠি জেলা পুলিশের তালিকায় নিখোঁজ আছেন ৪০ জন।

পুলিশের কন্ট্রোল রুমের হিসাব অনুযায়ী নিখোঁজ ব্যক্তিদের স্বজনরা নিখোঁজ হিসেবে ৪১ জনের নাম দিয়েছে।

৫৭-তে পা দিলেন বলিউড সুলতান সালমান খান। এই সুপারস্টারের রোমান্টিক ছবির বেশিরভাগই ব্যবসাসফল। তবে তার অ্যাকশনধর্মী ছবিগুলোই সবচেয়ে বেশি আলোড়ন তুলেছে বলে মনে করেন অনেকে।

বলিউডি ইন্ডাস্ট্রিতে ৩২ বছরের বেশি সময়ের ক্যারিয়ারে নিয়মিতই বক্স অফিসে ঘূর্ণিঝড় তুলেছেন সালমান খান। এখনও তুলছেন। এক কথায় গত তিন দশকে বলিউডের সবচেয়ে সফল তারকাদের একজন তিনি। তিন খানের মধ্যে অন্যতম।

জনপ্রিয় সব সিনেমা উপহার দেওয়ার মধ্যেই বেশ কয়েকটি রেকর্ড গড়েছেন সালমান খান, যা বলিউডের আর কোনো অভিনেতার নেই।

১) একটানা ১৫টি ১০০ কোটির বেশি আয় করা সিনেমা উপহার দিয়েছেন সালমান, যা বলিউডের ইতিহাসে আর কেউ পারেননি। 

২) ৩০০ কোটি রুপি আয়ের ক্লাবেও রয়েছে সালমানের ৩টি সিনেমা। এ অনন্য অর্জনও নেই আর কারও।

৩) ১৯৯৪ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত সালমান খান অভিনীত ছবি ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’ সিনেমাটি একটি অনন্য রেকর্ড গড়ে। মুক্তির পর সিনেমাটির টিকিট বিক্রি হয়েছিল ৭ কোটি ৪০ লাখের বেশি। হিন্দি সিনেমার ইতিহাসে আর কোনো সিনেমার এতো বেশি টিকিট বিক্রি হয়নি।

৪) শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন সালমান খান। এছাড়া বিভিন্ন বিজ্ঞাপন, শো করার মাধ্যমে অঢেল অর্থের মালিক হয়েছেন। তার মোট সম্পদের পরিমাণ ৩ হাজার কোটির বেশি।  

৫) শুধু বড় পর্দায় নয়; ছোট পর্দা তথা টিভিতে হাজির হয়েও সুপারহিট সালমান খান। যে অর্জনের বলিউডের অনেক সুপারস্টারের নেই। ‘দশ কা দম’, ‘বিগ বস’-এর মতো তুমুল জনপ্রিয় অনুষ্ঠানগুলো সঞ্চালনা করেছেন তিনি। বছরের পর বছর ধরে সালমানের এসব অনুষ্ঠান জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছে।

৬) ব্যক্তিগত জীবনে বেশকিছু প্রেমে জড়ালেও বিয়ে করেননি সালমান খান। বলিউড ভাইজান খ্যাত তারকা ৫৭ বছরে এসেও সিঙ্গেল। যে কারণে বলিউডের ‘মোস্ট এলিজেবল’ ব্যাচেলর খেতাবটি এখনও তারই।

যোগাযোগ ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget